এবার অপু বিশ্বাসকে খাওয়ালেন ডিবি প্রধান

চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসকে খাবার খাওয়ালেন ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদ। গত রোববার সাইবার বুলিং বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের অফিসে আসলে তাকে আপ্যায়ন করেন ডিবি প্রধান।

Feb 20, 2024 - 10:00
Feb 19, 2024 - 23:26
 0  58
এবার অপু বিশ্বাসকে খাওয়ালেন ডিবি প্রধান
এবার অপু বিশ্বাসকে খাওয়ালেন ডিবি প্রধান | Image Source: Apu Biswas's Facebook Profile

প্রথম প্রকাশ: ১১ আগস্ট, ২০২৩

এবার চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসকে খাবার খাওয়ালেন ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদ। গত রোববার সাইবার বুলিং বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের অফিসে আসলে তাকে আপ্যায়ন করেন ডিবি প্রধান। তবে হারুনের এমন নিয়মিত কর্মকাণ্ডে ব্যাপক আলোচনা-সমালোচনা শুরু হয়েছে দেশের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। অনেকে মজা করে এখন লিখেন দুপুরে খাবার খাওয়ার টাকা না থাকলে ডিবি কার্যালয়ে যাওয়া যেতে পারে।


এর আগে ২৯ জুলাই ডিবি অফিসে বিএনপি নেতা 
গয়েশ্বর চন্দ্ররায়কে খাওয়ান ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদ। তাদের খাওয়ার একটি ছবি ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়। এই ছবি প্রকাশের পর দেশের রাজনৈতিক মহলে শুরু হয় ব্যাপক সমালোচনা। আসলেই যদি কেউ আইনের মাধ্যমে আটক থাকে আর সেখানের কর্মকাণ্ড বাইরে প্রশাক হওয়া কতটা যৌক্তিক।


বিশ্বস্থ সূত্রে জানা গেছে
, চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসকে আপ্যায়ন করা খাবার ডিবি প্রধান হারুন-অর রশিদের বাসা থেকেই আনা হয়েছিলো। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডিবি প্রধান হারুন জানান, “আগামীতে একটা সিনেমা মুক্তি পাবে। যেখানে সাইবার বুলিং ও বিভ্রান্তিমূলক তথ্য প্রচারের অভিযোগ নিয়ে কাজ হয়েছে। সেটি জানাতে ডিবি কার্যালয়ে এসেছিলেন বাংলা সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেত্রী অপু বিশ্বাস


এ বিষয়ে সাংবাদিকদের অপু বিশ্বাস বলেন
, “লাল শাড়ি নামে আমি একটি সিনেমা করেছি। এই সিনেমার পাইরেসিরোধে ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মিথ্যা কনটেন্ট তৈরির বিষয়ে অভিযোগ করতে এখানে এসেছি এর আগে ঢাকায় বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির মহা সমাবেশ পরবর্তী ঢাকার প্রবেশ মুখে অবস্থান কর্মসূচিতে গয়েশ্বর রায় আহত হন। এ ঘটনার পর বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়কে জেরা করেন ডিবি। প্রথমিকভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করেই তাকে ডিবি অফিস থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়।


তবে জিজ্ঞাসাবাদের সময় এক মধ্যাহ্নভোজে অংশ নেন বিএনপির নেতা। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়
, বিএনপির নেতাকে আপ্যায়নের জন্য উন্নতমানের খাবার আনা হয়। মধ্যাহ্নভোজের তালিকা ছিলো বেশ বড়। যার তালিকায় বিভিন্ন মাংস, মাছসহ সবজি ও ডাল ছিলো। এছাড়া আম, ড্রাগনসহ ফলমূলও বেশ ছিলো। ডিবি প্রধান হারুন অর রশীদের সঙ্গে এক টেবিলে খাবার খান।


পরবর্তীতে তাকে ডিবি প্রধান গাড়ি যোগে বাসায় পৌঁছে দেন বলেও জানা যায়। তবে বাংলাদেশের রাজনীতিতে সর্বদায় ডিবি প্রধান হারুনের ছবি প্রকাশ একটা ভিন্ন মাত্রা দিয়েছে। আসলে এটির ভালো-মন্দ আরো কিছু দিন পর বোঝা যাবে। তবে এমন ঘটনা আগে কখনো দেখা যায় নি।

আপনার প্রতিক্রিয়া কি?

like

dislike

love

funny

angry

sad

wow

আব্দুস সবুর (লোটাস) ক্ষণস্থায়ী পৃথিবীতে প্রতিনিয়ত নতুন কিছু জানার চেষ্টায় রয়েছি। নিজের অভিজ্ঞতা, চিন্তা ও ভাবনাগুলো লিখতে ভালোবাসি।